২৪ অক্টোবর, ২০১৭ | ৯ কার্তিক, ১৪২৪ | ৩ সফর, ১৪৩৯


লোহাগাড়ার শীর্ষ ২ মাদক ব্যবসায়ী আটকঃ এলাকায় স্বস্তি

নিজস্ব প্রতিনিধি#

দক্ষিণ চট্টগ্রামের লোহাগাড়ার শীর্ষ দুই মাদক ব্যসায়ীকে লোহাগাড়া থানা পুলিশ আটক করেছে বলে সংবাদ পাওয়া গেছে। আটক মাদক ব্যবসায়ী মোাহম্মদ আলীকে লোহাগাড়া থানা পুলিশ আজ ২৯ সেপ্টেম্বর রাতে গ্রেফতার করেছে ও আরেক মাদক সম্রাট পোড়া ফারুককে আজ ৩০ সেপ্টেম্বর ভোরে স্থানীয় জনতা তার বাড়ি ঘেরাও করে আটক করে লোহাগাড়া থানায় সোপার্দ করেছেন বলে থানা সুত্রে প্রকাশ। আটক মোহাম্মদ আলী আধুনগর উত্তর হরিণা মিয়া পাড়ার মৃত গুরা মিয়ার পুত্র ও পোড়া ফারুক আধুনগর ৮ নং ওয়ার্ডের মৃত আব্দুল মতলবের পুত্র।লোহাগাড়া থানা সুত্রে প্রকাশ, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে লোহাগাড়া থানা পুলিশের এসআই হেলাল খান ও এএসআই ওয়াসিম মিয়া সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে উপজেলার আধুনগর উত্তর হরিণা মিয়া পাড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে মোহাম্মদ আলীর বাড়ি হতে ৫ বোতল ফেন্সিডিলসহ তাকে আটক করে থানা হেফাজতে নিয়ে আসে।আটককৃতদের বিরুদ্ধে লোহাগাড়া থানায় মাদকের একাধিক মামলা রয়েছে বলে থানা সুত্রে প্রকাশ। তাদের আটকের খবর এলকায় ছড়িয়ে পড়লে স্বস্তির নিশ্বাস এসেছে বলে এলকাবাসী জানান। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক এলাকাবাসী বলেন, মাদক সম্রাট মোহাম্মদ আলী দক্ষিণ চট্টগ্রামের মাদকের গডফাদার। এতোদিন ধরা ছোঁয়ার বাইরে থেকে মাদক পাচার করে আসছে। অবশেষে পুলিশের হাতে আটক হয়।

স্থানীয় ইয়াছিন অারফাত চৌধুরী এলিন বলেন, দীর্ঘদিন ধরে মো: আলী ও তার স্ত্রী পারভিন এলকায় মাদক ব্যবসা চালিয়ে আসছে। এলকাবাসী মিলে কয়েকবার মাদক ব্যবসা না করার জন্য তাগিদ দিলে মামলা দিয়ে বিভিন্ন হয়রানি করে এলকাবসীকে। এলিন আরো বলেন, মো: আলীর পুরো পরিবার এ মাদক ব্যবসায়ের সাথে জড়িত রয়েছে। তবে তারা গোপনে সহযোগিতা করে। মো: আলী আটক হওয়ায় পুলিশকে ধন্যবাদ জানান এলিন।

অপরদিকে আরেক মাদক সম্রাট পোড়া ফারুকের অত্যাচারে এলাকাবাসী অতিষ্ট হয়ে ৩০ সেপ্টেম্বর ফজরের নামাজের পর স্থানীয় মুসল্লীরা এলাকার মতব্বরসহ সবাই মিলে তাকে বাড়ি হতে আটক করে লোহাগাড়া থানা পুলিশের হাতে সোপার্দ করে।

আধুনগর চেয়ারম্যার পাড়ার আব্দুল মজিদ বলেন, ফজরের নামাজের পর সবাই মিলে পোড়া ফারুককে আটক করে থানায় নিয়ে গিয়ে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করি।

স্থানীয়রা বলেন, আটক মোহাম্মদ আলী ও পোড়া ফারুক একই এলাকার। তাদের ভয়ে এলাকার কেউ কথা বলতে পারছে না। বিভিন্ন সময় তারা মামলার ভয় দেখায়। তাদের কারণে এলাকার উঠতি বয়সের ছেলারা মাদকের ছোবল থেকে রক্ষা পাচ্ছে না। আধুনগরে হাতবাড়ালেই মাদক পাওয়া যায় এমনটা সবার মুখে মুখে।

লোহাগাড়া থানা পুলিশের সাহসী অফিসার ইনচার্জ মো: শাহজাহান পিপিএম বার বলেন, আটককৃত মো: আলীকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ৫ বোতল ফেন্সিডিলসহ আটক করে থানা পুলিশ। তার বিরুদ্ধে মাদক নিয়ন্ত্রন আইনে মামলা রুজু হয়। অন্যদিকে স্থানীয়রা আটকরে দেওয়া পোড়া ফারুকের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।