২৭ মে, ২০১৯ | ১৩ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ | ২১ রমযান, ১৪৪০


সদর উপজেলা নির্বাচনে তালেব, সোহেল ও জয়ের মনোনয়ন প্রত্যাহার

বিশেষ প্রতিবেদক:কক্সবাজার সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিনে ১৩ মার্চ বুধবার কক্সবাজার সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু তালেব, কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইসতিয়াক আহমেদ জয় ও কক্সবাজার জেলা পরিষদের সদস্য সোহেলজাহান চৌধুরী তাদের নিজ নিজ মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেছেন। বিষয়টি সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) ও সহকারী রিটার্নিং অফিসার মাহফুজুর রহমান কে নিশ্চিত করেছেন। চেয়ারম্যান পদে ৩ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করায় এখন এপদে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী রয়েছেন ৫ জন। সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অফিসের প্রধান সহকারি মাহবুব আলম জানান-পুরূষ ভাইস চেয়ারম্যান পদে বৈধ ৯ জন প্রার্থীর মধ্যে কেউই মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেননি। সদর উপজেলা পরিযদ নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসারের কার্যালয়ের গোপনীয় সহকারি অনিক দে জানান-মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদেও ৩ জন প্রার্থীর মধ্যে কেউই তাদের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করেননি। প্রত্যাহারের পর কক্সবাজার সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৫ জন, পুরূষ ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৯ জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩ জন সহ তিনটি পদে মোট ১৭ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন। চেয়ারম্যান পদে যাঁরা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় করছেন, তাঁরা হলেন-কক্সবাজার জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক ও কক্সবাজার জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক কয়েক যুগের সভাপতি মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক মরহুম এ.কে.এম মোজাম্মেল হকের পুত্র, আওয়ামীলীগ মনোনীত নৌকার প্রতীকের প্রার্থী কায়সারুল হক জুয়েল, ঝিলংজা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মরহুম মাওলানা মোকতার আহামদের পুত্র আবদুল্লাহ আল মোর্শেদ প্রকাশ তারেক বিন মোকতার, কক্সবাজার পৌরসভার চারবারের নির্বাচিত সাবেক চেয়ারম্যান ও কক্সবাজার রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির ভাইস চেয়ারম্যান নুরুল আবছার, জাতীয় স্বেচ্ছাসেবক পার্টির কেন্দ্রীয় সদস্য ও জাতীয় পার্টির মনোনীত লাঙ্গলের প্রার্থী অধ্যাপক আতিকুর রহমান এবং ইসলামাবাদ ইউনিয়নের খোদাইবাড়ি গ্রামের আলী আকবরের পুত্র শ্রমিকলীগ নেতা সেলিম আকবর। সদর উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে যাঁরা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন তারা হলেন-ঈদগাঁও সাংগঠনিক উপজেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি ও সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মরহুম মুক্তিযোদ্ধা এস.টি.এম রাজা মিয়া’র পুত্র আমজাদ হোসেন ছোটন রাজা, তরুণ আওয়ামী লীগ নেতা ও কক্সবাজার পৌরসভার কাউন্সিলর কাজী মোরশেদ আহামদ বাবু’র ছোট ভাই কাজী রাসেল আহমদ নোবেল, কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ও মুক্তিযোদ্ধা স.ম নুরুন্নবীর পুত্র মোরশেদ হোসাইন তানিম, তরুন রাজনীতিবিদ চৌফলদন্ডীর হাসান মুরাদ আনাচ, ঈদগাহ কমিউনিটি পুলিশের সাধারণ সম্পাদক কাইয়ুম উদ্দীন, ঝিলাংজা ইউনিয়নের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মরহুম নবাব মিয়ার পুত্র রশিদ মিয়া, খুরুস্কুলের কামাল উদ্দিন, ইসলামাবাদ ইউনিয়ন পূজা কমিটির সভাপতি ও ইসলামাবাদ ইউনিয়নের সাবেক মেম্বার বাবুল কান্তি দে প্রকাশ বাবুল মেম্বার এবং সাতকানিয়া-লোহাগাড়া সমিতির সহ সভাপতি আবদুর রহমান।মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বী তিনজন প্রার্থী হলেন-বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান ও সাবেক কক্সবাজার পৌরসভার কাউন্সিলর হেলেনাজ তাহেরা, কক্সবাজার জেলা যুব মহিলা লীগের সভানেত্রী আয়েশা সিরাজ ও জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হামিদা তাহের।১৪ মার্চ চুড়ান্ত প্রার্থীতালিকা প্রকাশ, ১৪ মার্চ প্রতীক বরাদ্দ এবং ৩১ মার্চ ভোট গ্রহন করা হবে। কক্সবাজার সদর উপজেলায় ইভিএম পদ্ধতিতে-এ ভোট গ্রহন করা হবে। এজন্য ভোট গ্রহনের আগে ভোটারদের ইসি’র উদ্যোগে ইভিএম পদ্ধতি বিষয়ে প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ দেয়া হবে। কক্সবাজার সদর উপজেলার আওতাধীন কক্সবাজার পৌরসভা ও ১০টি ইউনিয়ন যথাক্রমে ইসলামপুর, ইসলামাবাদ, ঈদগাঁও, জালালাবাদ, পোকখালী, ভারুয়াখালী, চৌফলদন্ডি, খুরুশকুল, পিএমখালী, ঝিলংজায় ভোটার রয়েছে ২ লাখ ৫৬ হাজার ৬৪৪ জন। তারমধ্যে-পুরুষ ভোটার ১ লাখ ৩৫ হাজার ৪৪২ এবং মহিলা ভোটার-১ লাখ ২১ হাজার ২০২ জন। মোট ১০৮টি ভোটকেন্দ্রে ভোট ৬৪৮টি বুথ রয়েছে।এদিকে, মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ দিনে কে কে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করছেন-এনিয়ে কক্সবাজার সদর উপজেলার ভোটারদের মাঝে কৌতুহল ও জল্পনা-কল্পনার শেষ ছিলনা। সবার দৃষ্টি বুধবারের প্রত্যাহারের দিকেই ছিল। চেয়ারম্যান পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় থাকা ৫ জন প্রার্থীর মধ্যে সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে শেষপর্যন্ত কে কে মূল প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আসছেন এটা এখন সদর উপজেলার ভোটারদের মুখে মুখে।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।