২২ আগস্ট, ২০১৯ | ৭ ভাদ্র, ১৪২৬ | ২০ জিলহজ্জ, ১৪৪০


বিবিএন শিরোনাম
  ●  ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় জড়িতদের শাস্তি নিশ্চিত করা হবে : প্রধানমন্ত্রী   ●  মিয়ানমারে বিদ্রোহীদের হামলায় ৩০ সেনা নিহত   ●  মাতামুহুরী নদী থেকে দুই হাজার মিটার নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল জব্দ   ●  চৌফলদন্ডীতে পুলিশের উপর হামলা করে ইয়াবা ব্যবসায়ী ছিনতাই, আহত ২   ●  ঈদগাঁওতে সৌদিয়া পরিবহনের ধাক্কায় বৃদ্ধ নিহত   ●  জালালাবাদ থেকে দুই ইয়াবা ব্যবসায়ীকে আটক করেছে পুলিশ   ●  চকরিয়ায় সার্ফারী পার্কে প্রশিক্ষিত হাতির আঘাতে মাহুত নিহত   ●  বঙ্গবন্ধু হত্যাকান্ডের প্রধান আসামী জিয়াউর রহমানকে ইতিহাস ক্ষমা করেনি-এমপি কমল   ●  আজ ভয়াল একুশে আগস্ট   ●  পদত্যাগ করছেন ইতালির প্রধানমন্ত্রী!

কবি মুহম্মদ নুরুল হুদার একটি ব্যক্তিগত আবেদন

kobiখবর বিজ্ঞপ্তি:

কবি মুহম্মদ নুরুল হুদা সম্প্রতি কলকাতা ভ্রমণে যান। সেখানে গিয়ে তিনি তার মূল্যবান লেখা ও জিনিসপত্র সহ একটি ব্যাগ ভুল করে ফেলে আসেন ট্যাক্সি ক্যাবে। সেই পরিপ্রেক্ষিতে কবি মুহম্মদ নুরুল হুদা তার ফেসবুকে একটি ব্যক্তিগত আবেদন করেন। তার আবেদনটি হুবহু তুলে ধরা হলো এখানে।

এক

১৭অক্টোবর ২০১৬; সন্ধে ৬টা প্রায়।

কলকাতা কফিহাউসে বসে আছি। সঙ্গে স্ত্রী-কন্যা ও সঙ্গী-সাথী। কোলে আমার প্রায় সর্বক্ষণের সঙ্গী রাখাইন ব্যাগ। এটি সাধারণত আমি কাঁধে ঝুলিয়ে রাখি, স্বভাব-কবিদের মত। ব্যাগটি দেখতে শান্তিনিকেতনি ব্যাগের মত। এখানে রক্ষিত ছিল আমার ছোট ল্যাপটপ (DELL NOTEBOOK), সাদা রঙের। প্রায় ৫ বছর পুরনো এই যন্ত্রে রক্ষিত আছে আমার’ সমূদয় রচনা। এর মধ্যে অনেকগুলোর কোনো অনুলিপি আমার কাছে নেই। এটি আমার জন্য অপূরণীয় ক্ষতি।

ব্যাগে আমার কিছু নতুন পাণ্ডুলিপি, পরিচয়পত্র, নিত্যব্যবহার্য টুকিটাকি ছাড়াও একটি সাদা নায়লনের ফোল্ডারে দুটি মানিব্যাগ ছিল। এই মানিব্যাগ দুটিতে ডলার, ভারতীয় রুপী ও বাংলাদেশের টাকা সহ বেশ-কিছু অর্থ ছিল। ব্যাগে ‘সমধারা’ পত্রিকার বিশেষ সংখ্যা ছিল, যার প্রচ্ছদে আমার একটি বড় ছবি আছে।

দুই

১৭অক্টোবর ২০১৬; সন্ধে ৭টা প্রায়।

ট্যাক্সি করে আমরা সল্টলেকে ( FC-46, SECTOR- 3, KOLKATA) আমার এক বন্ধুর বাড়ির সামনে নামি। ভাড়া মেটানর পর ট্যাক্সি চলে গেলেই বুঝতে পারি আমি ব্যাগটি গাড়ির পেছনের সীটে ফেলে এসেছি। ততক্ষণে ট্যাক্সি আমার নাগালের বাইরে। কথায় বার্তায় ট্যাক্সিচালকে বেশ সজ্জন ও সদালাপী মানুষ বলে মনে হয়েছে। তবে তাঁর নাম ঠিকানা গাড়ির নম্বর বা মোবাইল নম্বর কোন কিছুই আমার কাছে নেই। তাই ট্যাক্সিচালক বা এই ব্যাগের অন্য কোন প্রাপকের সদিচ্ছার ওপর নির্ভর করা ছাড়া আমার কোন উপায় নেই।

তিন

কোন সহৃদয় প্রাপক যদি ব্যাগটি আমাকে ফেরত দেন আমি আজীবন কৃতজ্ঞ থাকব। আমি এই ব্যাগে রক্ষিত কোন অর্থ ফেরত চাই না। এমনকি ল্যাপটপটি না পেলেও আমার আপত্তি নাই। আমি শুধু এই ল্যাপটপে রাখা আমার রচনাবলীর ফাইলসমূহ ফেরত পেতে চাই। যিনি ন্যুনতম-পক্ষে আমাকে আমার এই মূল্যবান ফাইলগুলো ফেরত দেবেন, আমি প্রয়োজনে (অর্থাৎ তিনি চাইলে) তাঁর পরিচয় সম্পূর্ণ গোপন রাখবো। এটি আমার সদাচারী মানবিক অঙ্গীকার।

চার

কোন সহৃদয় ব্যক্তি আমার আবেদনে সাড়া দিলে নিচের ঠিকানায় যোগাযোগ করতে অনুরোধ জানাচ্ছি

মুহম্মদ নূরুল হুদা (MOHAMMAD NURUL HUDA)

Kolkata Mobile no- 9748839296, 9830475186

Dhaka Mobile no-088 01977545173, 088 01720087771

E-mail; [email protected]

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।





আপনার মতামত লিখুন :