১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | ৪ আশ্বিন, ১৪২৬ | ১৯ মুহাররম, ১৪৪১


বিবিএন শিরোনাম
  ●  ৯ থেকে ৩০ অক্টোবর উপকূলে মাছ ধরা নিষিদ্ধ   ●  রোহিঙ্গাদের পাসপোর্টে জড়িত কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী   ●  জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে ফাইনালে বাংলাদেশ   ●  টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই রোহিঙ্গাসহ নিহত ৩   ●  টেকনাফে জন্ম নিবন্ধন সনদ জালিয়াতির অভিযোগে উদ্যোক্তা সহ আটক ২   ●  পেকুয়ায় ভাড়া বাসা থেকে গৃহবধূর লাশ উদ্ধার   ●  চকরিয়ায় বন্ধুর ছোটবোনকে ধর্ষণ, যুবক গ্রেফতার   ●  ৩৬ ঘন্টায় বিশ্বজুড়ে ছড়াতে পারে ফ্লু, মারা যেতে পারে ৮ কোটি মানুষ   ●  ঈদগাঁওতে সড়ক ও জনপথ বিভাগের শত কোটি টাকার জমি দখল করে স্থাপনা   ●  টেকনাফে ২১০ টি মিয়ানমারের সীমকার্ড সহ ৩ রোহিঙ্গা আটক

কুতুবদিয়ায় জোয়ার ঠেকাতে পরিষদের অর্থায়ন ও সেচ্ছাশ্রমে বেড়িবাঁধ মেরামত

কুতুবদিয়া দ্বীপের জেলেপাড়ার ভাঙ্গন এলাকায় জোয়ার ঠেকাতে আলী আকবর ডেইল ইউনিয়ন পরিষদের অর্থায়নে ও সেচ্ছাশ্রমে বাঁধ মেরামত কাজ চলছে। মঙ্গলবার (২৭আগস্ট/১৯) দুপুরে জেলেপাড়া এলাকায় জোয়ার ঠেকানো বাঁধ মেরামত কাজ পরিদর্শন করেন উপজেলার চেয়ারম্যান এডভোকেট আলহাজ ফরিদুল ইসলাম চৌধূরী। জেলেপাড়া হতে কুমিরারছড়া স্লুইচ গেইট এলাকা পর্যন্ত ১০ চেইন ভাঙ্গন বেড়িবাঁধ এলাকায় জোয়ার ঠেকাতে শতাধিক শ্রমিক নিয়োগ করেছে উদ্যোক্তারা। আগামী তিন/চার দিনের মধ্যে জোয়ার ঠেকানো বাঁধ মেরামতের কাজ সম্পন্ন হবে বলে আলী আকবর ডেইল ইউপির চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুচ্ছাফা বিকম জানান।
কুমিরারছড়া জেলেপাড়া এলাকার স্থানীয় ইউপির সদস্য আকতার কামাল জানান, বাঁধ মেরামতে দুই পাশে গাছের খুটি আর বাঁেশর বেড়ার মধ্যে মাটি ফেলে জোয়ার ঠেকানো বাঁধ মেরামত করে যাচ্ছে শ্রমিকরা। বিগত চার বছর পূর্বে প্রাকৃতিক দূর্যোগ ঘূর্ণিঝড়ে কুমিরারছড়া জেলেপাড়া, মুরালিয়া এলাকায় এক কিলোমিটার বেড়িবাঁধ ভেঙে লন্ডভন্ড হয়ে যায়। প্রতি বর্ষা মৌসুমে জোয়ারে ভাঙন কবলিত এলাকার শতশত একর ফসলি জমি নোনা জলে প্লাবিত হওয়ার ফলে অনাবাধি হয়ে পড়ে থাকে। চলতি বর্ষা মৌসুমে সদ্য উপ-নির্বাচনে নির্বাচিত বড়ঘোপ ইউপির চেয়ারম্যান আ,ন,ম শহীদ উদ্দিন ছোটন মুরালিয়া এলাকায় ১৭ চেইন বিলীন বাঁধের উপর জোয়ার ঠেকানো বাঁধ মেরামত করে। ঐ অংশের আলী আকবর ডেইল ইউনিয়নের কুমিরারছড়া জেলেপাড়া ১০ চেইন বাঁধ ভাঙ্গা অংশ দিয়ে জোয়ারভাটা বসে। তাই জোয়ার ঠেকানোর জন্য স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের অর্থায়নে ও সেচ্ছাশ্রমে ভাঙন বাঁধ মেরামত করা হচ্ছে।
আলী আকবর ডেইল ইউপির চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুচ্ছাফা বিকম জানান, তার ইউনিয়নে কাহারপাড়া,তেলিপাড়া,হকদার পাড়া,বায়ুবিদ্যুৎ, পশ্চিম তাবলরচর এলাকায় ভাঙ্গণ বেড়িবাঁধ এলাকায় জোয়ার ঠেকাতে সেচ্ছাশ্রমে এবং আলী আকবর ডেইল ইউনিয়ন পরিষদের অর্থায়নে বেড়িবাঁধ মেরামত কাজ সম্পন্ন করেছে। এ রির্পোট লিখা পর্যন্ত এসব এলাকায় তিন’শ মিটার মেরামত কাজ সম্পন্ন করে।
গত শনিবার (২৪ আগস্ট) বিকালে সদ্য যোগদানকারী কুতুবদিয়ার ইউএনও জিয়াউল হক মীর দ্বীপের অধিকাংশ ভাঙ্গন বেড়িবাঁধ এলাকা পরিদর্শন করেন। চলতি বর্ষা মৌসুমে ফসলি জমিতে চাষাবাদ করার লক্ষে স্থানীয় উদ্যোগে জোয়ার ঠেকানোর বাঁধ মেরামতের জন্য সংশ্লিষ্ট চেয়ারম্যানদের নির্দেশ দেন।
মঙ্গলবার (২৭আগস্ট) দুপুরে কুমিরারছড়া জেলেপাড়ায় বিলীন বেড়িবাঁধ এলাকায় জোয়ার ঠেকানো বাঁধ মেরামত কাজ পরিদর্শন কালে উপজেলা পরিষদের সাথে আরো উপস্থিত ছিলেন,আলী আকবর ডেইল ইউপির চেয়ারম্যান উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা নুরুচ্ছাফা বিকম, কুতুবদিয়া উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এস.কে.লিটন কুতুবী, আলী আকবর ডেইল ইউপির প্যানেল চেয়ারম্যান আলহাজ জাহাঙ্গির আলম সিকদার, উপজেলা যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম গুন্নু ,উপজেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নাজিম উদ্দিন সিকদার লালা,ইউপির সদস্য যথাক্রমে আকতার কামাল ,আবদুল মোতালেব,দিদারুল ইসলাম বাচ্চু,মাহামুদুল করিম, আফজল আহমদসহ ক্ষতিগ্রস্ত এলাকার শতশত মানুষ।
এ দিকে বড়ঘোপ মুরালিয়া ও কুমিরারছড়া খাল এলাকা পর্যন্ত ১৭ চেইন জোয়ার ঠেকানো বেড়িবাঁধ মেরামত কাজ সম্পন্ন হয়েছে। আলী আকবর ডেইল ইউনিয়নের কুমিরারছড়া জেলেপাড়া এলাকায় ১০ চেইন বেড়িবাঁধ মেরামত কাজ সম্পন্ন হলে ঐ এলাকার জনবসতির ঘর ভিটি ও শতশত একর ফসলি জমি জোয়ারে প্লাবণের হাত থেকে রক্ষা পাবে বলে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এডভোকেট আলহাজ ফরিদুল ইসলাম চৌধূরী জানান।
কুতুবদিয়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আরো বলেন, বিগত কয়েক বছর ধরে বঙ্গোপসাগরের জোয়ারে কক্সবাজার জেলার পাউবোর উপকূলের ৭১ পোল্ডারের কুতুবদিয়া দ্বীপের ৪০ কিলোমিটার বেড়িবাঁেধর মধ্যে ২০ কিলোমিটার বাঁধ ভাঙ্গা থাকায় ঐ সব এলাকায় প্রতিদিন জোয়ার ভাটা বসছে। প্রতি অমাবশ্যা ও পূর্ণিমার জোয়ারের স্্েরাতের সাথে ভেসে যাচ্ছে শতাধিক পরিবার।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।





আপনার মতামত লিখুন :