২৩ আগস্ট, ২০১৯ | ৮ ভাদ্র, ১৪২৬ | ২১ জিলহজ্জ, ১৪৪০


বিবিএন শিরোনাম

কোন মৎস্যজীবী সরকারি সহায়তা থেকে বাদ যাবে না- এমপি আশেক

মহেশখালী-কুতুবদিয়ার সাংসদ আশেক উল্লাহ রফিক বলেছেন, আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় থাকলে কাউকে না খেয়ে থাকতে হবে না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দেশ এখন খাদ্যে স্বয়ংস্মপুর্ণ। তাই সরকারের সহযোগীতা থেকে কেউ আর বাদ পড়ছে না। তিনি বলেন,কক্সবাজার জেলার মহেশখালী দ্বীপের অধিকাংশ মানুষের জীবিকা নির্বাহের প্রধাান উৎস সমুদ্রিক মাছ। এই মৎস্য সম্পদকে সমৃদ্ধ করতে সম্প্রতি টানা ৬৫ দিন সমুদ্রে মাছ ধরা নিষেধ ছিল। তাই সাময়িক কর্মহীন হয়ে পড়া মৎস্যজীবীদের সরকার যথাযত সহযোগীতা করছে। এতে মহেশখালীতে কর্মহীন হয়ে পড়ে ১১,২৪২ জন জেলে । প্রথম দাপে উক্ত জেলেদের মাঝে চাউল বিতরণ শেষ করে। গতকাল শুক্রবার নিবন্ধনকৃত জেলেদের মাঝে ২য় দাপে চাউল বিতরণ শুরু করা হয়েছে।

এতে মহেশখালী পৌরসভার দুই হাজার ৯২ জনের মাঝে চাউল বিতরণ করেছে মহেশখালী কুতুবদিয়ার আশেক উল্লাহ রফিক এমপি। এসময় উপস্থিত ছিলেন মহেশখালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জামিরুল ইসলাম, মহেশখালীর পৌর মেয়র মকছুদ মিয়া, মহেশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ প্রভাষ চন্দ্র ধর, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিসের উপসককারী হানিফ মিয়া, পৌর কাউন্সিলর মিশকাত সিকদার, আব্দু শুক্কুর, সনজিত চক্রবর্তি প্রমুখ। মহেশখালী প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিস সুত্রে জানা যায়, মহেশখালী উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নের নিবন্ধনকৃত জেলেদের জন্য সরকারী ভাবে ৫৩৩ মেট্রিক টন চাউল বরাদ্ধ রয়েছে। এতে চাউল পাচ্ছেন পৌরসভায় ৯৭ মেট্রিক টন, কুতুবজুমে ১৬৩ মেট্রিক টন, মাতারবাড়ি ৬৮ মেট্রিক টন, ধলঘাটা ৩৩ মেট্রিক টন, কালারমারছড়া ২৩ মেট্রিক টন, শাপলাপুর ২১ মেট্রিক টন, হোয়ানক ৪১ মেট্রিক টন, ছোট মহেশখালীতে ৪৮ মেট্রিক টন বিরতরণ করবে স্ব স্ব এলাকার চেয়ারম্যান বৃন্দ।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।





আপনার মতামত লিখুন :