১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | ৪ আশ্বিন, ১৪২৬ | ১৯ মুহাররম, ১৪৪১


বিবিএন শিরোনাম
  ●  ৯ থেকে ৩০ অক্টোবর উপকূলে মাছ ধরা নিষিদ্ধ   ●  রোহিঙ্গাদের পাসপোর্টে জড়িত কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী   ●  জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে ফাইনালে বাংলাদেশ   ●  টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই রোহিঙ্গাসহ নিহত ৩   ●  টেকনাফে জন্ম নিবন্ধন সনদ জালিয়াতির অভিযোগে উদ্যোক্তা সহ আটক ২   ●  পেকুয়ায় ভাড়া বাসা থেকে গৃহবধূর লাশ উদ্ধার   ●  চকরিয়ায় বন্ধুর ছোটবোনকে ধর্ষণ, যুবক গ্রেফতার   ●  ৩৬ ঘন্টায় বিশ্বজুড়ে ছড়াতে পারে ফ্লু, মারা যেতে পারে ৮ কোটি মানুষ   ●  ঈদগাঁওতে সড়ক ও জনপথ বিভাগের শত কোটি টাকার জমি দখল করে স্থাপনা   ●  টেকনাফে ২১০ টি মিয়ানমারের সীমকার্ড সহ ৩ রোহিঙ্গা আটক

পেকুয়ায় রাজাখালী ইউনিয়ন দরবার সড়কের বেহাল দশা

বিএনপি-জামায়াত জাট সরকারর সময় সড়কটিত ইট বিছানা হয়। এরপর আর উনয়নর ছাঁয়া লাগনি। বর্তমান সড়কটি ¶তবি¶ত। বিছানা ইট ভঙ সর গিয়ছ অনক আগ । এখন মাটিও সর যাছ। বন্ধ রয়ছ যানবাহন চলাচলও। খুব জররী না হল, এ সড়ক গাড়ি আনন না চালকরা। ফল চলাচল চরম দুর্ভাগ পাহাছ এলাকার প্রায় ১৫ হাজার মানুষ। এই করণ দশা পকুয়া উপজলার রাজাখালী ইউনিয়নর দরবার সড়কর।সরজমিন দখা গছ, নাজুক সড়কটিত হাঁটত গিয় হাঁচট খয় পড়ছন অনকই।এছাড়া সামান্য বষ্টিত সড়কর কিছু অংশ ডুব থাক পানিত। তাই কাঁদা পানি মাড়িয় চলাচল করছ মানুষজন।¯ানীয় বাসিদারা জানান, দরবার সড়ক দিয় রাজাখালী ইউনিয়নর দ¶িণ পশ্চিমাংশর বকশিয়াঘানা, নতুনঘানা, নতুনপাড়া, দ¶িণ সুদরীপাড়া, বদিউদ্দিনপাড়া ও চঁরিপাড়া এলাকার ১৫ হাজার মানুষ চলাচল কর এই সড়ক দিয়। দীর্ঘদিন সং¯ার না হওয়ায় দিনদিন নাজুক হয় পড়ছ সড়কটি। এখন তা হাঁটাও দায় হয় পড়ছ। যান চলাচল বন্ধ থাকায় শি¶ার্থীদর যাতায়ত, অসু¯ রাগী পরিবহণ, লবণ ও চিংড়ী পরিবহণ চরম ভাগাি পাহাত হছ। রাজাখালী ইউপির ৭নং ওয়ার্ডর সদস্য আবদুল মানান বলন, দীর্ঘদিন ধর সড়কটি চলাচল অনুপযাগী হয় পড়ছ। তব প্রতিবছর শি¶ার্থী ও গ্রামবাসী মিল ¯^ছাশ্রম সড়কটি সং¯ার কর রিকশা চলাচলর উপযাগী করা হয়। কি সা¤প্রতিক সময় অতিবষ্টি ও জলাবদ্ধতায় সড়কটি ¶তবি¶ত হওয়ার পর থক খুব ঝুঁকি নিয় যানবাহন চলাচল করছ। এত দুর্ভাগ বড়ছ। রাজাখালী ইউনিয়ন পরিষদর চয়ারম্যান ছয়দ নূর বলন, একটু বষ্টি হলই সড়কটি পানিত ডুব যায়। তখন নকা নিয় চলাচল করত হয়। এখন সড়কর দুই পাশর মাটি পাশর লবণ মাঠ ও চিংড়ী ঘর ধস পড়ছ। এত সড়কর ভবিষ্যৎ নিয়ও অনিশ্চয়তা দখা দিয়ছ। তিনি বলন, এলাকাবাসীর চলাচলর দুর্ভাগর বিষয় বিবচনায় সড়কটি সং¯ারর জন্য আমি সংশি ষ্টদর দ্বার দ্বার ধর্ণা দিয়ছি। ¯ানীয় সাংসদ, উপজলা চয়ারম্যান ও এলজিইডি অফিস অনকবার লিখিত আবদন দিয়ছ। কি সড়কটি সং¯ার কউ এগিয় আসনি। দীর্ঘদিন সং¯ার বঞ্চিত থাকায় সড়কটি নিশ্চিহ্ন হওয়ার পথ। তাই তিন কিলামিটারর এ সড়কটি সং¯ার বড় বরাদ্দ প্রয়াজন। পকুয়া উপজলার প্রকশলী জাহদুল আলম চধুরী বলন, দরবার সড়ক সং¯ারর জন্য গুরত্বপূর্ণ গ্রামীণ সড়ক নির্মাণ ও সং¯ার প্রকল্প চাহিদাপত্র পাঠানা হয়ছ। খুব শীঘ্রই বরাদ্দ আসত পার। বরাদ্দ পল দরবার সড়কর সং¯ারকাজ শুর হব।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।





আপনার মতামত লিখুন :