২২ আগস্ট, ২০১৯ | ৭ ভাদ্র, ১৪২৬ | ২০ জিলহজ্জ, ১৪৪০


বিবিএন শিরোনাম
  ●  ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় জড়িতদের শাস্তি নিশ্চিত করা হবে : প্রধানমন্ত্রী   ●  মিয়ানমারে বিদ্রোহীদের হামলায় ৩০ সেনা নিহত   ●  মাতামুহুরী নদী থেকে দুই হাজার মিটার নিষিদ্ধ কারেন্ট জাল জব্দ   ●  চৌফলদন্ডীতে পুলিশের উপর হামলা করে ইয়াবা ব্যবসায়ী ছিনতাই, আহত ২   ●  ঈদগাঁওতে সৌদিয়া পরিবহনের ধাক্কায় বৃদ্ধ নিহত   ●  জালালাবাদ থেকে দুই ইয়াবা ব্যবসায়ীকে আটক করেছে পুলিশ   ●  চকরিয়ায় সার্ফারী পার্কে প্রশিক্ষিত হাতির আঘাতে মাহুত নিহত   ●  বঙ্গবন্ধু হত্যাকান্ডের প্রধান আসামী জিয়াউর রহমানকে ইতিহাস ক্ষমা করেনি-এমপি কমল   ●  আজ ভয়াল একুশে আগস্ট   ●  পদত্যাগ করছেন ইতালির প্রধানমন্ত্রী!

সৈকতের সী-ওয়ার্ল্ড সড়ক ৬ মাস ধরে বন্ধ

 আবদুল্লাহ নয়ন :

11কক্সবাজার শহরের কলাতলী পর্যটন জোনের সী-ওয়ার্ল্ড সড়ক দীর্ঘ ছয়মাস ধরে বন্ধ রয়েছে। সৈকতে নামার অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ এই সড়কটি বন্ধ থাকায় পর্যটক ও স্থানীয় ব্যবসায়ীরা চরম ভোগান্তি শিকার হচ্ছেন। সেই সাথে ব্যবসায়িকভাবে ক্ষতির শিকার হচ্ছেন লাবণী পয়েন্ট এলাকার ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানগুলো। অন্যদিকে পরিত্যক্ত থাকায় সড়কটি বর্তমানে অপরাধীদের আস্তানায় পরিণত হয়েছে।
স্থানীয় ব্যবসায়ীরা জানান, যানজটের অজুহাত তুলে বিগত ছয় মাসে আগে সী ওয়ার্ল্ড সড়কটি বন্ধ করে দেন ট্রাফিক পুলিশ। কিন্তু সড়কটি বন্ধ করে দেয়া হলেও লাবণী পয়েন্টসহ আশেপাশের এলাকায় যানবাহন অবস্থানে চিত্র আগের মতই। বরং সড়কটি বন্ধ করে দেয়াতেই যানবাহনের ভিড় আগের চেয়ে বেড়েছে। সেই সাথে অপরাধীদের আস্তানায় পরিণত হয়ে সড়কটি পর্যটক ও ব্যবসীদের অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠেছে।
স্থানীয় লোকজন জানান, দীর্ঘদিন বন্ধ থাকায় সড়ক পরিত্যক্ত অবস্থা পতিত হয়েছে। রক্ষণাবেক্ষণ না থাকায় সড়কের অবস্থা অত্যন্ত ভঙ্গুর ও ময়লা আবর্জনায় নোংরা হয়ে পড়েছে। এতে চলাচল করা অত্যন্ত দায় হয়ে পড়েছে। এর সাথে সন্ধ্যা নামলেই শহরের বিভিন্ন এলাকার ছিনতাকারী, মাদকসেবী, পতিতাসহ বিভিন্ন অপরাধীরা এই সড়কে আড্ডা বসায়। এই কারণে সন্ধ্যার পরে এই সড়ক দিয়ে চলাচল অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ। এভাবে বেশ কয়েকটি ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে ওই সড়কে।

লাবণী পয়েন্টস্থ সৈকত ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহমান জানান, সৈকতের লাবণী পয়েন্ট হচ্ছে পর্যটকদের অন্যতম আকর্ষণীয় স্পট। কলাতলী হোটেল-মোটেল জোনে অবস্থান করা অধিকাংশ পর্যটক সী-ওয়ার্ল্ড সড়ক লাবণী পয়েন্ট সৈকতে নামতো। একে উপলক্ষ্য করে লাবণী পয়েন্টে নানা রকমের বিভিন্ন পর্যটকবান্ধব ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠেছে। কিন্তু সড়কটি বন্ধ থাকায় লাবণী পয়েন্টে পর্যটক অবগমন একেবারে কমে গেছে। এতে লাবণী পয়েন্টের সব ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের বেচাকেনা অর্ধেকের নেমে এসেছে। এতে ব্যবসায়ীরা অত্যন্ত শঙ্কটের মুখে পড়েছে। বেচাকেনা থাকায় আর্থিক ক্ষতি হচ্ছে ব্যবসায়ীদের।
সৈকত ঝিনুক ব্যবসায়ী সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান বলেন, যানজটের অজুহাত তুলে গুরুত্বপূর্ণ সড়কটি বন্ধ করে দিয়ে আমাদের পেটে লাথি মারা হয়েছে। ১২ মাসের মধ্যে আমরা শুধুমাত্র মৌসুমে চারমাস ব্যবসা করতে পারি। কিন্তু সী-ওয়ার্ল্ড সড়কটি বন্ধ থাকায় সেটাও হচ্ছে না। আমরা অতি শিগগিরই সড়ক খুলে দেয়ার জন্য প্রশাসকের সুদৃষ্টি কামনা করছি।

এই ওয়েব সাইটের কোন লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।





আপনার মতামত লিখুন :